Spread the love

আয়কর ফাঁকির অভিযোগে করা মামলায় আজ বুধবার আল্লামা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীকে আদালতে হাজির করা হয়। বুধবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে তাকে বকশীবাজারে স্থাপিত বিশেষ জজ আদালত ১-এ আনা হয়। আদালতের কার্যক্রম শুরু হওয়ার আগে কাঠগড়ায় দাঁড়িয়ে তিনি বলেন, সবাইকে একদিন মরতে হবে। মিথ্যা মামলা দিয়ে আমাকে আর কত হয়রানি করা হবে? মাওলানা সাঈদীর আইনজীবী মুজাহিদুল ইসলাম জানান, আসামির কাঠগড়ায় দাঁড়িয়ে আল্লামা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী আইনজীবী ও পুলিশের উপস্থিতিতে এসব কথা বলেন।

আয়কর ফাঁকির অভিযোগে মাসুমা খাতুন নামে তৎকালীন সহকারী কর কমিশনার মাওলানা সাঈদীর বিরুদ্ধে এই মামলা দায়ের করেন। আজ বাদী আদালতে প্রথমবারের মত সাক্ষ্য প্রদান করেন। আংশিক জবানবন্দি নিয়ে পুরান ঢাকার বকশীবাজার আলিয়া মাদরাসা মাঠে স্থাপিত অস্থায়ী ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৩-এর ভারপ্রাপ্ত বিচারক মোহাম্মদ নজরুল ইসলামের আদালত আগামী ১১ ফেব্রুয়ারি পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করা হয়।

আসামিপক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট আবদুস সোবহান তরফদার ও মুহা. মুজাহিদুল ইসলাম, রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম বাচ্চু।

আয়কর ফাঁকির অভিযোগে মামলায়া দেলোওয়ার হোসাইন সাঈদীর বিরুদ্ধে বুধবার সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়েছে।

উল্লেখ্য, মানোবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় আমৃত্যু কারাদণ্ড হওয়ায় আল্লামা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী এখন কারাগারে আছেন। ২০১১ সালের ১৯ আগস্ট ২ কোটি ২৭ লাখ ৪০ হাজার ১২০ টাকা আয় গোপন করে তার ওপর প্রযোজ্য কর ৫৬ লাখ ৪৬ হাজার ৮১২ টাকা কর ফাঁকির অভিযোগে এনবিআর তার বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করে। ২০১২ সালের ১৫ সেপ্টেম্বর মামলাটি সাঈদীর বিরুদ্ধে চার্জগঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন আদালত।

 

Share This Post