কানাডায় মুসলিম পরিবারের ওপর ইসলামবিদ্বেষী চালকের নৃশংস হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান।

এক টুইট বার্তায় এই হত্যাকাণ্ডকে সন্ত্রাসবাদী কর্মকাণ্ড বলে উল্লেখ করে ইমরান খান বলেন, তিনি এই ঘটনায় খুবই আহত হয়েছেন। পশ্চিমা দেশগুলোতে ক্রমাগত ইসলামভীতি বেড়ে যাওয়ার ঘটনায় তিনি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে সতর্ক থাকার আহ্বান জানান।

এর আগে স্থানীয় সময় রোববার সন্ধ্যায় টরেন্টো থেকে ১২৪ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমের শহর লন্ডনে রাস্তা পারাপারের জন্য অপেক্ষারত পাকিস্তানি বংশদ্ভুত এক কানাডিয়ান মুসলিম পরিবারকে পরিকল্পিতভাবে গাড়িচাপা দেয় এক ইসলামবিদ্বেষী গাড়িচালক।

এ ঘটনায় ওই পরিবারের ৭৭ ও ৪৪ বছর বয়সী দুই নারী, ৪৬ বছর বয়সী এক পুরুষ ও ১৫ বছর বয়সী এক কিশোরী নিহত হয়েছেন। এছাড়া হামলায় নয় বছর বয়সী এক শিশু মারাত্মকভাবে আহত হয়েছে। আহত শিশুকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হামলাকারী গাড়িচালককে ইতোমধ্যেই গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানায় স্থানীয় পুলিশ। গ্রেফতার হওয়া ২০ বছর বয়সী ন্যাথানিয়েল ভেল্টম্যানের বিরুদ্ধে চারটি হত্যা মামলা ও একটি হত্যাচেষ্টার মামলায় অভিযোগ আনা হয়েছে।

পুলিশ জানায়, পূর্ব-পরিকল্পিতভাবে পিকআপ ট্রাক চাপা দিয়ে ওই পরিবারটির সবাইকে হত্যা করতে চেয়েছিল অভিযুক্ত খুনি। কিন্তু ভাগ্যক্রমে একমাত্র সদস্য হিসেবে নয় বছরের একটি শিশু বেঁচে গেছে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করে কানাডা পুলিশ।

Share This Post