আমি একা আছি, কারও ক্ষমতা থাকলে মসজিদ-মাদরাসায় হাত দিয়ে দেখাক বলে হুঁশিয়ার করেছেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপি শামীম ওসমান।

তিনি বলেন, আমি চুপ করে থাকলে আমার মৃত্যুর পর আল্লাহ আমাকে ধরবেন যে ‘আমি তোকে বানাইসি তুই কী করসোস’। আল্লাহ সম্মান প্রদানকারী এবং আল্লাহই সম্মান কেড়ে নিতে পারেন। সেই আল্লাহর ঘরে যদি আঘাত আসে আর আমি চুপ করে বসে থাকি তাহলে মৃত্যুর পর আমাকে তার জবাব দিতে হবে।

শনিবার (২০ মার্চ) রাতে নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার আলীরটেক ইউনিয়নে ওলামা পরিষদ আলীরটেকের উদ্যোগে আয়োজিত ওয়াজ-মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

শামীম ওসমান বলেন, নারায়ণগঞ্জে কিছু ঘটনা ঘটছে। আমি ভেবেছিলাম কিছুই বলবো না। আমি আজকেও পুরোটা বলবো না, কিছুটা বলবো। অনেক কিছু দেখছি, কিছু বলছি না। অনেক আলেম প্রতিবাদ করেছেন। আবার অনেক আলেম চুপ করে বসেও আছেন। যারা সংখ্যালঘু তাদের রক্ষার দায়িত্ব মুসলমানদের। ওয়াকফার সম্পত্তি যেমন রেজিস্ট্রার হয় না তেমনি দেবোত্তর সম্পত্তিও রেজিস্ট্রার হয় না।

তিনি বলেন, ভোটের আগে অনেকে গরিবের গালে গাল লাগিয়ে ছবি তোলেন। তখন গরিবের ঘামের গন্ধ লাগে না। আর ভোট শেষ হলেই, রাস্তায় হকার আছে। পিটাও সবারে। আল্লাহ সাক্ষী, আমি সেদিন দেখলাম হকারদের মারছে। আমি রাস্তায় পাড়া দিলে দশ হাজার লোক এক লাখ হতে সময় লাগে না। কিন্তু আমি বেইমানি করেছি, যাইনি।

নিজের কাছে যখন অসহায় লেগেছে আমি শুধু দুই রাকাত নফল নামাজ আদায় করেছি আর আল্লাহর কাছে দুআ করেছি। এসব করবেন না। কুরআনে নামাজ পড়ার কথা যতবার আছে তার চেয়ে বেশি আছে মানুষকে খাবার দেওয়ার কথা। তাদের বাসায় যখন বাচ্চারা ক্ষুধায় কান্না করবে আর তার মা যখন আল্লাহকে ডাকবে সেই ‘হাক’ খুব মারাত্মক। ধ্বংস হয়ে যাবে সব।

Share This Post