Spread the love

রক্ত দিতে চাই না, দেয়া শুরু করলে বন্ধ করবো না বলে মন্তব্য করেছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর নায়েবে আমীর মুফতি ফয়জুল করীম। তিনি বলেছেন ধোলাইপাড়ে ভাস্কর্যের নামে যে মূর্তি স্থাপন করার পরিকল্পনা করছে সরকার। আমরা তৌহিদি জনতা সেটা বাস্তবায়ন হতে দিবো না।

আজ শুক্রবার (১৩ নভেম্বর) ধোলাইপাড় চত্ত্বরে তৌহিদি জনতা ঐক্য পরিষদ এর আয়োজনে এক বিক্ষোভ সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

এ সময় উপস্থিত জনতার সমর্থনে হাত উঁচু করতে বললে সবাই মূর্তি না হওয়ার পক্ষে রায় দনে। এরপর তিনি প্রশাসনের প্রতি লক্ষ করে বলেন, অধিকাংশ মানুষের ভোটে যদি সরকার গঠন হতে পারে। তাহলে অধিকাংশ মানুষের রায়ে সিদ্ধান্ত কেনো হতে পারবে না?

তিনি আরও বলেন, যে দেশের মানুষ এখনো খোলা আকাশের নিচে ঘুমায়। যে দেশের মানুষ এখনো বস্ত্রহীন চলছে। যে দেশের মানুষ এখনো চিকিৎসাহীন মারা যাচ্ছে।
যে দেশের মানুষ এখনো ডাস্টবিনে কাক-কুকুরের সাথে খাদ্যের জন্য লড়াই করছে। সে দেশের মানুষের টাকা দিয়ে মূর্তি স্থাপন হবে-বাংলাদেশের মানুষ তা মানতে পারে না। আমি সহ্য করতে পারি না। এদেশ কারো বাবার দেশ নয়। এ দেশ কারো দাদার দেশ নয়। আমাদের টাকা দিয়ে মূর্তি হতে দিবো না। আন্দোলন করবো। সংগ্রাম করবো। লড়াই করবো। জিহাদ করবো। কথা ক্লিয়ার।

সরকারকে উদ্দেশ করে মুফতি ফয়জুল করীম বলেন, যদি আপনি মূর্তি স্থাপন করতে চান। তাহলে মূর্তি স্থাপনের জায়গা আছে। সেটা হলো মন্দির। সেখানে স্থাপন করুন। কিন্তু বাংলাদেশ ৯২% মুসলমানের ভূমিতে কোনো মূর্তি স্থাপন করতে দেয়া হবে না।

তিনি বলেন, রক্ত দিতে চাই না। কিন্তু যদি দেয়া শুরু করি তাহলে বন্ধ করবো না। মুসলমানের রক্ত কেউ বন্ধ করতে পারে না। আমরা সেই খালেদ বিন ওয়ালিদের উত্তরসূরী।
আমরা সেই আবু বকরের উত্তরসূরী। আমরা ওমরের উত্তরসূরী। আমরা আলীর উত্তরসূরী। আমরা বদরের হাতিয়ার। আমরা খন্দকের হাতিয়ার। আমরা উহুদের হাতিয়ার। আমরা জাগ্রত হলে আবু জাহেলকে দুনিয়া থেকে বিদায় না দেয়া পর্যন্ত মাঠ ছেড়ে পলায়ন করি না।

বিক্ষোভ সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন, মধুপুরের পীর আল্লামা আব্দুল হামিদ, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন এর আমীর মাওলানা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী,  ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর মহাসচিব অধ্যক্ষ উইনুছ আহমেদ, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর যুগ্ন মহাসচিব গাজী আতাউর রহমান প্রমূখ নেতৃবৃন্দ।

Share This Post