Spread the love

দখলদার ইসরাইলের সঙ্গে মিতালি স্থাপন, অশ্লীলতার ব্যাপক অনুমোদনের পর এবার ইসলামের প্রাণকেন্দ্র ও রাসূলের দেশ সৌদি আরবে প্রথমবারের মতো মিউজিক কলেজ প্রতিষ্ঠার জন্য লাইসেন্স জারি করেছে দেশটির ইসরাইল বান্ধব সরকার।

সোমবার সৌদি সংস্কৃতিমন্ত্রী যুবরাজ বদর বিন আবদুল্লাহ বিন ফারহান বলেছেন, “আমি দেশের দুটি সংগীত প্রতিষ্ঠানের জন্য প্রথম লাইসেন্স জারির ঘোষণা করছি।

আমি বেসরকারী এবং অলাভজনক খাতগুলিতে আগ্রহী সবাইকে প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে বিভিন্ন সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানের লাইসেন্সের আবেদন জমা দেওয়ার জন্য আহ্বান জানাই।”

তিনি বেসরকারী ও অলাভজনক সংস্থাগুলিকে ‘সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে’ আরও বেশি প্রতিষ্ঠান স্থাপনের জন্য আমন্ত্রণও জানিয়েছেন।

এছাড়াও, সৌদি সংস্কৃতি মন্ত্রণালয় আর্ট রেসিডেন্সি দেশের ২০২০-২০২১-এর দ্বিতীয় সংস্করণের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে জানা গেছে।

এই কর্মসূচির আওতায় সৌদি আরব ও আন্তর্জাতিক শিল্পী, সমালোচক, গবেষক এবং লেখককে সৌদিতে আমন্ত্রণ জানানো হবে। সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সূত্রে জানা গেছে, কথিত সাংস্কৃতিক সংলাপ, বিশ্লেষণী চিন্তাভাবনা এবং বিভিন্ন বয়সের মানুষের মধ্যে বৈজ্ঞানিক অভিজ্ঞতার আদান-প্রদানের জন্য সৌদি আরবে “আল-বিলাদ” কর্মসূচি স্থাপন করা হয়েছে। প্রোগ্রামটি সৌদি আরবের বহুল প্রচারিত 2030 সালের ভিশনেরও একটি অংশ।

 

Share This Post